সব কিছু
লক্ষ্মীপুর বুধবার , ১৭ই জুলাই, ২০১৯ ইং , ২রা শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ , ১৪ই জিলক্বদ, ১৪৪০ হিজরী

ঘূর্ণিঝড় “ফণি” ৩ মে ভারতে আঘাত ৪ মে বাংলাদেশে

ঘূর্ণিঝড় “ফণি” ৩ মে ভারতে আঘাত ৪ মে বাংলাদেশে

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় ‘ফণি’ নিয়ে ইতোমধ্যে বাংলাদেশ, ভারতসহ সারা পৃথিবীর প্রায় সকল মিডিয়া এবং বিভিন্ন আবহাওয়া মনিটরিং সংস্থা সারাক্ষণ দৃষ্টি রাখছে। বিভিন্ন সংস্থা ও মিডিয়া বিভিন্ন ভাবে এর গতিপথ ব্যাখা করছে। লক্ষ্মীপুরটোয়েন্টিফোর বিশ্বব্যাপী বিভিন্ন মিডিয়া এবং ভারত বাংলাদেশের আবহাওয়া অধিদপ্তরের বিজ্ঞপ্তি সারাক্ষণ নজরে রাখছে।

সকল তথ্য দেখে মোটামুটি এটা বুঝা যাচ্ছে যে, ‘ফণি’ শুক্রবার ভারতের বাহরামপুর-ভুবেনশ্বর উপকূলে আঘাত হানার পর শনিবার সকালে ১০০কিমি গতির বাতাস নিয়ে বাংলাদেশের ভূখণ্ডে প্রবেশ করবে। মূলত ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুর এবং চুয়াডাঙ্গায় থাকবে ফণি’র কেন্দ্র। তবে সারাদেশেই তার প্রভাব পড়বে।

জাপান আবহাওয়া স্যাটেলাইট, ওয়েদার, স্কাইমেট ওয়েদার, সিএনএন, এবং নিউইর্য়ক টাইমসে প্রকাশিত ঝড়ের  ম্যাপ থেকে এ তথ্য জানা গেছে। 

ইন্ডিয়ান টাইমসে প্রকাশিত ফণি ট্র্যাকিং

শনিবার ভারতের পশ্চিমবঙ্গ অতিক্রম করে বাংলাদেশের ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুর উপজেলা এবং চুয়াডাঙ্গা সীমান্ত দিয়ে ঘূর্ণিঝড় ফণি বাংলাদেশ অতিক্রম করবে। এ সময় ফণি’র ধ্বংসলীলা চলতে পারে পুরো দেশই।

বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর বাংলাদেশের মোংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরকে সাত নম্বর বিপদ সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে।

ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের ৭৪ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ১৬০ কিলোমিটার যা দমকা অথবা ঝড়ো হওয়া আকারে ১৮০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে। এ কারণে কেন্দ্রের কাছাকাছি সাগর খুবই উত্তাল রয়েছে।

আবাহাওয়ার বিশেষ বুলেটিনে বলা হয়েছে, সামনে অমাবস্যা থাকায় উপকূলীয় জেলা লক্ষ্মীপুর, ফেনী, চাঁদপুর, চট্টগ্রাম, নোয়াখালী, বরগুনা, ভোলা, পটুয়াখালী, বরিশাল, পিরোজপুর, ঝালকাঠি, বাগেরহাট, খুলনা, সাতক্ষীরা এবং অদূরবর্তী দ্বীপ ও চরাঞ্চলে এই জলোচ্ছ্বাস দেখা যেতে পারে।

ঘূর্ণিঝড় বাংলাদেশের স্থলভাগ পার হওয়ার সময় লক্ষীপুর, ফেনী, চট্টগ্রাম, নোয়াখালী, চাঁদপুর, বরগুনা, পটুয়াখালী, বরিশাল, ভোলা, পিরোজপুর, ঝালকাঠি, বাগেরহাট, খুলনা, সাতক্ষীরা জেলায় ভারি থেকে অতি ভারি বর্ষণ এবং সেই সঙ্গে ঘণ্টায় ৯০ থেকে ১১০ কিলোমিটার বেগে দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে

জাতীয় দুর্যোগ সাড়াদান সমন্বয় কেন্দ্র

জাতীয় দুর্যোগ সাড়াদান সমন্বয় কেন্দ্র থেকে ঘূর্ণিঝড় ফণী সম্পর্কে তথ্য পাওয়া যাবে।

৯৫৪৫১১৫, ৯৫৪৯১১৬, ০১৭৫৫৫৫০০৬৭ নম্বরে ফোন করে, ৯৫৪৯১৪৮, ৯৫৪০৫৬৭ নম্বরে ফ্যাক্সে এবং [email protected] ইমেইল করা যাবে।

আবহাওয়া আরও সংবাদ

আগামি ২-৩ দিন বৃষ্টি হতে পারে

আগামী ২৪ ঘণ্টায় তাপপ্রবাহ কমবে ও সামান্য বৃষ্টি হতে পারে

ঘূর্ণিঝড় “ফণি” ৩ মে ভারতে আঘাত ৪ মে বাংলাদেশে

ঘূর্ণিঝড় ফণী: ৪-৫ ফুট উচ্চতার জলোচ্ছ্বাসের পূর্বাভাস

সারা দেশে সব ধরনের নৌ চলাচল বন্ধ

বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তরের ওয়েবসাইট কাজ করছে না

লক্ষ্মীপুরটোয়েন্টিফোর মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন  
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত লক্ষ্মীপুরটোয়েন্টিফোর ডটকম ২০১২ - ২০১৮
সম্পাদক ও প্রকাশক: সানা উল্লাহ সানু
রতন প্লাজা (৩য় তলা) , চক বাজার, লক্ষ্মীপুর-৩৭০০
ফোন: ০১৭৯৪-৮২২২২২,ইমেইল: [email protected]