সব কিছু
facebook lakshmipur24.com
লক্ষ্মীপুর শনিবার , ২১শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ , ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ , ২০শে শাওয়াল, ১৪৪৩ হিজরি
সিএনজিতে তিন লাখ ২৮ হাজার টাকা পেয়ে মালিককে ফিরিয়ে দিলেন লক্ষ্মীপুরের পুলিশ কর্মকর্তা

সিএনজিতে তিন লাখ ২৮ হাজার টাকা পেয়ে মালিককে ফিরিয়ে দিলেন লক্ষ্মীপুরের পুলিশ কর্মকর্তা

সিএনজিতে তিন লাখ ২৮ হাজার টাকা পেয়ে মালিককে ফিরিয়ে দিলেন লক্ষ্মীপুরের পুলিশ কর্মকর্তা

লক্ষ্মীপুরে শাহ আবদুল্লাহ আল মারুফ নামে এক পু্লিশ কর্মকর্তা সততার দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন। সিএনজিতে থাকা ব্যাগভর্তি তিন লাখ ২৮ হাজার টাকা পেয়েও তিনি সে টাকা মালিকের কাছে হস্তান্তর করেন। এ ঘটনায় সহকর্মী, পরিচিতজনসহ ওই টাকার মালিকের কাছ থেকে প্রশংসায় ভাসছেন তিনি।

৩৮ তম ক্যাডেট ব্যাচের শিক্ষানবিশ উপপরিদর্শক (এসআই) মারুফ লক্ষ্মীপুর পুলিশ লাইনে কর্মরত আছেন। তার বাড়ি চাঁদপুর জেলার ফরিদগঞ্জ উপজেলায়। এ ব্যাপারে রোববার (৮ মে) দুপুরে পুলিশ কর্মকর্তা মারুফ ও টাকার মালিক মো. এরশাদ হোসেনের সাথে কথা হয় সাংবাদিক নিজাম উদ্দিনের সাথে ।

এসআই শাহ আবদুল্লাহ আল মারুফ জানান, গত ২২ এপ্রিল বিলেকে তিনি লক্ষ্মীপুর উত্তর স্টেশন থেকে রামগঞ্জ শহরের যাওয়ার উদ্দেশ্যে সিএনজি অটোরিকশায় উঠেন। তার সাথে আরও একজন যাত্রী ওই সিএনজিতে করে রামগঞ্জে যান। বৃষ্টি থাকায় তারা দুইজনের ওই গাড়ির যাত্রী ছিলেন। ইফতারের ঠিক আগ মুহুর্তে সিএনজিটি রামগঞ্জ চৌরাস্তা ট্রাফিক পুলিশ বক্সের কাছে গেলে এসআই মারুফের সাথে থাকা ওই যাত্রী নেমে যান। ইফতারের সময় ঘনিয়ে আসায় ওই যাত্রী দ্রুত সিএনজি থেকে নেমে স্থান ত্যাগ করেন। এ সময় তার সাথে থাকা একটি ব্যাগ নিতে ভুলে যান। পরবর্তীতে এসআই মারুফ ব্যাগটি দেখতে পেয়ে তার কাছে রেখে দেন। ব্যাগে কাপড়ের পাশাপাশি অনেকগুলো টাকা ছিলো। তখন ইফতারের সময়ও হয়ে যায়। ইফতারের পর ব্যাগের মালিক ট্রাফিক পুলিশ বক্সের কাছে এসে ব্যাগটি খুঁজতে থাকেন।

এ সময় মারুফ এসে ব্যাগটি তাকে বুঝিয়ে দেন। মারুফ বলেন, ব্যাগের মালিক মো. এরশাদ হোসেন রাজধানীর ইসলামপুরের কাপড়ের ব্যবসায়ী। সিএনজি অটোরিকশাতে তার সাথে থাকাবস্থায় সামান্য কথা হয়েছে। এ সময় সে রামগঞ্জ শহরের এক ব্যবসায়ীর নাম বলেছে, যাকে আমি পূর্ব থেকে চিনতাম। তাই এরশাদ হোসেনের ব্যাগটি পেয়ে আমি আমার হেফাজতে রাখি। টাকাভর্তি ব্যাগটি প্রকৃত মালিকের কাছে পৌঁছে দেওয়া আমার দায়িত্ব ছিলো। তাই ইফতার শেষে আমিও টাকার মালিককে খুঁজতে থাকি।

একজন মানুষ হিসেবে আমি আমার দায়িত্বটুকুই পালন করেছি। ব্যাগভর্তি টাকার মালিক মো. এরশাদ হোসেন বলেন, আমার বাড়ি ফরিদপুর। রামগঞ্জ উপজেলার দাসপাড়াতে আমার আত্মীয়ের বাড়ি আছে। আমি সেখানে যাওয়ার উদ্দেশ্যে চট্টগ্রাম থেকে লক্ষ্মীপুর শহরে এসে সেখান থেকে সিএনজিতে উঠি। আমার সাথে সিএনজিতে একজন ব্যক্তি ছিলো। রামগঞ্জ ট্রাফিক পুলিশ বক্সের কাছে গিয়ে আমি সিএনজি থেকে নেমে যাই, তখন টাকার ব্যাগটি নিতে ভুলে গেছি। ব্যাগের মধ্যে ব্যবহৃত কাপড়সহ তিন লাখ ২৮ হাজার টাকা ছিলো। ব্যাগটি হারিয়ে আমার অবস্থা খারাপ হয়ে যায়। কয়েক মিনিট পরে আমি ব্যাগের সন্ধানে ট্রাফিক পুলিশ বক্সের কাছে আসি।

আমার সাথে সিএনজিতে যিনি ছিলেন, তিনিই আমার ব্যাগটি আমাকে বুঝিয়ে দেন। এরশাদ হোসেন আবেগাপ্লুত হয়ে বলেন, মারুফ স্যার একজন সৎ পুলিশ অফিসার। পুলিশের প্রতি আগে নেতিবাচক ধারণা ছিলো। কিন্তু এ ঘটনার পর মনে হয়েছে আমার পূর্বের ধারণাটা একেবারেই ভূল। মারুফ স্যারের কোন লোভ লালসা নেই। উনি ইচ্ছে করলে আমার টাকা ফেরত না দিলেও পারতো। আমি উনার এবং তার পরিবারের সদস্যদের মঙ্গল কামনা করি। আমি সারাজীবন তার প্রতি কৃতজ্ঞ থাকবো। কর্মজীবনে উনি সততার সহিত দায়িত্ব পালন করবেন বলে আমি মনে করি।

লক্ষ্মীপুর সংবাদ আরও সংবাদ

লক্ষ্মীপুরে প্রবীনদের মিলন মেলা ও সংবর্ধনা সভা

লক্ষ্মীপুরে নিরাপদ খাদ্য ও উচ্চমূল্য ফসল উৎপাদনে ডিপ্লোমা কৃষিবিদদের সেমিনার

লক্ষ্মীপুরে জাতীয় পরিসংখ্যান দিবস পালিত

লক্ষ্মীপুরে গাছ পড়ে শিশুর মৃত্যু, আহত ৪

শপথের ১৪ দিন পর লক্ষ্মীপুরের দত্তপাড়া ইউনিয়নের এক সদস্যের মৃত্যু

লক্ষ্মীপুরে পিয়ারাপুর স্পোর্টিং ক্লাবের ৩য় প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী

লক্ষ্মীপুরটোয়েন্টিফোর বাংলাদেশ সরকারের তথ্য মন্ত্রনালয়ে অনলাইন নিউজপোর্টাল প্রকাশনার নিবন্ধনের জন্য আবেদনকৃত, তারিখ: 9/12/2015  
 All Rights Reserved : Lakshmipur24 ©2012-2021
Chief Mentor: Rafiqul Islam Montu, Editor & Publisher: Sana Ullah Sanu.
Sopna Monjil (Ground Floor), Goni Headmaster Road, Lakshmipur, Bangladesh.
Ph:+8801794 822222, WhatsApp , email: news@lakshmipur24.com