সব কিছু
লক্ষ্মীপুর মঙ্গলবার , ৩১শে মার্চ, ২০২০ ইং , ১৭ই চৈত্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ , ৬ই শাবান, ১৪৪১ হিজরী
অপহরণের পর শিশু বিক্রির অপরাধে লক্ষ্মীপুরে একজনের যাবজ্জীবন

অপহরণের পর শিশু বিক্রির অপরাধে লক্ষ্মীপুরে একজনের যাবজ্জীবন

অপহরণের পর শিশু বিক্রির অপরাধে লক্ষ্মীপুরে একজনের যাবজ্জীবন

শিশু অপহরণের পর বিক্রির দায়ে লক্ষ্মীপুরের রায়পুরের  রাজু হোসেন ইমন (৩২) নামে একজনের যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদন্ড দিয়েছে আদালত। বুধবার (৪ মার্চ) সকালে মানব পাচার প্রতিরোধ ও দমন ট্রাইব্যুনাল আদালতের বিচারক মোহাম্মদ সিরাজুদ্দৌলাহ কুতুবী এ রায় দেন। দন্ডপ্রাপ্ত ইমন রায়পুর উপজেলার বামনী ইউনিয়নের হারুনুর রশিদের ছেলে। রায়ের সময় সাজাপ্রাপ্ত আসামি ইমন আদালতে উপস্থিত ছিলেন না।

আদালত সুত্রে জানা যায়, রায়পুরের বামনী গ্রামের মো. হানিফের সঙ্গে ইমনদের জমি সংক্রান্ত বিরোধ ছিল। ২০১৬ সালের ২ নভেম্বর হানিফের শিশু ছেলে আবদুল্লাহ (৪) স্থানীয় মাঠে খেলছিল। একপর্যায়ে ইমন ওই শিশুটিকে অপহরণ করে নিয়ে যায়। পরে শিশুটিকে ৩০ হাজার টাকায় অজ্ঞাতদের কাছে বিক্রি করে দেয়। শিশুটিকে সম্ভাব্য স্থানে খুঁজে না পেয়ে ২৯ নভেম্বর ৫ জনকে আসামি করে শিশুটির মা আমেনা বেগম বাদীয় হয়ে রায়পুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। পরে ওই বছর ১ ডিসেম্বর চাঁদপুর জেলা থেকে পুলিশ শিশুটিকে উদ্ধার করে। এ ঘটনায় পুলিশ ৩ জনকে আসামি করে আদালতে চার্জশীট দাখিল করেন। দীর্ঘ সাক্ষ্য গ্রহণ ও শুনানি শেষে দোষী প্রমাণিত হওয়ায় আদালত ইমনের সশ্রম কারাদন্ড দেয়। একই সঙ্গে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা ও অনাদায়ে আরও ৩ মাসের কারাদন্ডের আদেশ দেওয়া হয়। এদিকে মামলায় নির্দোষ প্রমাণিত হওয়ায় শাহিদা বেগম ও ফরিদা ইয়াসমিনকে খালাস দিয়েছে আদালত।

আইনের প্রয়োগ আরও সংবাদ

রামগতিতে অস্ত্র তৈরির কারখানার সন্ধান, দুজন আটক

মেঘনায় ইলিশ শিকারের দায়ে নৌকা জালসহ ২২ জেলে আটক

রামগতিতে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযানে ইটভাটা বন্ধ

রামগঞ্জে ভ্রাম্যমাণ আদালতে ৮ প্রতিষ্ঠানের জরিমানা

অপহরণের পর শিশু বিক্রির অপরাধে লক্ষ্মীপুরে একজনের যাবজ্জীবন

রায়পুরে ভ্রাম্যমাণ আদালতে জরিমানা আদায়

লক্ষ্মীপুরটোয়েন্টিফোর মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন  
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার: লক্ষ্মীপুরটোয়েন্টিফোর (২০১২-২০২০)
সম্পাদক ও প্রকাশক: সানা উল্লাহ সানু, উপদেষ্টা সম্পাদক: রফিকূল ইসলাম মন্টু
রতন প্লাজা(৩য় তলা), চক বাজার, লক্ষ্মীপুর-৩৭০০ |
ফোন: ০১৭৯৪-৮২২২২২ | ইমেইল: [email protected]