সব কিছু
লক্ষ্মীপুর শনিবার , ২৪শে আগস্ট, ২০১৯ ইং , ৯ই ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ , ২৩শে জিলহজ্জ, ১৪৪০ হিজরী

রফিকুল ইসলাম মন্টু: ভিন্ন ধারার সাংবাদিকতার প্রবর্তক

রফিকুল ইসলাম মন্টু: ভিন্ন ধারার সাংবাদিকতার প্রবর্তক

রফিকুল ইসলাম মন্টু। দেশের গণমাধ্যমের নিকট তিনি উপকূল-সন্ধানী সংবাদকর্মী হিসাবে পরিচিত। তবে সমগ্র উপকূলবাসী তাকে চেনে ‘‘উপকূল বন্ধু’’ নামে। তিনিই একমাত্র ব্যক্তি, যিনি জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে বাংলাদেশের উপকূল অঞ্চলে যে প্রভাব পড়ছে তার একমাত্র ও নিয়মিত সচিত্র উপস্থাপক। এ সাংবাদিক বাংলাদেশের  উপকূলের ১৯ জেলার ৭১০ কিলোমিটার ঘুরে নিয়মিত মানবিক সংবাদ লিখে গণমাধ্যমে সৃষ্টি করেছেন নতুন ধারার  এক সাংবাদিকতা। তার সৃষ্ট সে সাংবাদিকতার নাম উপকূল সাংবাদিকতা।

তার সৃষ্ট এ ধারার সংবাদিকতায় প্রতিনিয়ত বাংলাদেশের উপকূলের মানুষের বিপন্নতার চিত্র গণমাধ্যমে ওঠে আসছে। পাশাপাশি গণামাধ্যমে উপকূলের নানা সম্ভাবনার কথাও চলে আসছে। গুগল সূত্রে জানা যায়, শুধু বাংলাদেশেই নয়, বিশ্বব্যাপী উপকূল সাংবাদিকতার প্রবর্তক একমাত্র তিনিই।

বাংলাদেশের উপকূলের সমস্যা সম্ভাবনা  নিয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যমে তার প্রকাশিত প্রতিবেদনের সংখ্যা কয়েক হাজার ছাড়িয়েছে। এ সকল প্রতিবেদন থেকে পেয়েছেন দেশি-বিদেশী বহু পুরস্কার। যদিও তিনি পুরস্কারের জন্য সংবাদ লিখেন নি।

অন্যদিকে নিজের কাজটি চলমান রাখার জন্য তিনি ভবিষ্যত অনুসারি তৈরি করছেন। এ জন্য হাতে কলমে ভিন্নধারার এ মানবিক সাংবাদিক হওয়ার লক্ষ্যে তিনি প্রশিক্ষণ দিচ্ছেন উপকূলের বিভিন্ন গণমাধ্যমের সংবাদকর্মীদের। বাংলাদেশের উপকূলের ১৯ জেলার শত শত সাংবাদিক এখন তার অনুসারি।

শুধু সংবাদকর্মীই নন উপকূলের শতশত তরুণও তার মতো এমন কাজের অনুসারি। ফলে তারাও যুক্ত হচ্ছেন, রফিকুল ইসলাম মন্টুর কাজের সাথে। সব মিলে তার সৃষ্ট এ ধারার সাংবাদিকতা যে ভবিষ্যতে ব্যাপক কাজে লাগবে তা স্পষ্ট।

সে অর্থে উপকূলের অনেক সাংবাদিক ও তরুণদের নিকট  তিনি যেন সাংবাদিকতা শেখার বিশ্ববিদ্যালয়। আবার সাধারণ মানুষের নিকট তিনি উপকূলের তথ্য ভান্ডার। কেননা তার হাতে আছে বাংলাদেশের উপকূলের হাজারো তথ্য। বাংলাদেশের উপকূলকে রক্ষার জন্য তিনি যেন নিজকে উৎসর্গই করেছেন।

অবিরাম ছুটে যাচ্ছেন দূর্গম সব জনপদে, যেখানে এখন পর্যন্ত তিনি ছাড়া ২য় কোন সাংবাদিকের পা পড়েনি। সারা বছরই করে যাচ্ছেনেএ কাজ।

মানবতার জন্য ভিন্নধারার  উপকূল সাংবাদিকতার প্রবর্তক রফিকুল ইসলাম মন্টুর জন্ম দিন ছিল ১ ফেব্রুয়ারি। সেটা জানা গেছে ফেসবুকের কল্যাণে। তবে তাকে শুভেচ্ছা  জানাতে তিনি ভক্তদের নিষেধ করেছেন । কারণ তার বক্তব্য হচ্ছে ভার্চুয়াল  শুভেচ্ছা দিয়ে কি হবে, যদি সত্যিইকারের ভালোবাসা অন্তরে না থাকে ?

সংগ্রামী ও ভিন্নধারার সাংবাদিকতার প্রবর্তক  রফিকুল ইসলাম মন্টুর জন্য লক্ষ্মীপুরটোয়েন্টিফোরের পক্ষ থেকে অনেক অনেক শুভেচ্ছা। আমরা সত্যিই আপনার কাজ ভালোবাসি। শতায়ু হোন উপকূল বন্ধু।।।

সানা উল্লাহ সানু

লক্ষ্মীপুরটোয়েন্টিফোর ডটকম।

 

 

গুণীব্যক্তি আরও সংবাদ

ইংরেজি দৈনিকের স্টাফ করেসপন্ডেন্ট পদে যোগ দিলেন, লক্ষ্মীপুরের জিয়া চৌধুরী

টেলিফোন শিল্প সংস্থার নতুন পরিচালক লক্ষ্মীপুরের ফখরুল হায়দর চৌধুরী

সুস্থ্য বোধ করছেন আ স ম আবদুর রব: লক্ষ্মীপুরে দোয়ার আয়োজন

প্রথম বাংলাদেশী হিসেবে জাতিসংঘের পর্যবেক্ষক মিশনে ইয়েমেন যাচ্ছেন, লক্ষ্মীপুরের মিরাজ

লক্ষ্মীপুরের সেলিনা আখতার, দেশে লড়াকু মায়ের উদহারণ

নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে নোয়াখালীর ভিসি চায় স্থানীয়রা

লক্ষ্মীপুরটোয়েন্টিফোর মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন  
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত লক্ষ্মীপুরটোয়েন্টিফোর ডটকম ২০১২ - ২০১৯
সম্পাদক ও প্রকাশক: সানা উল্লাহ সানু
রতন প্লাজা (৩য় তলা) , চক বাজার, লক্ষ্মীপুর-৩৭০০
ফোন: ০১৭৯৪-৮২২২২২,ইমেইল: [email protected]