সব কিছু
লক্ষ্মীপুর মঙ্গলবার , ১৩ই নভেম্বর, ২০১৮ ইং , ২৯শে কার্তিক, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ , ৫ই রবিউল-আউয়াল, ১৪৪০ হিজরী

লক্ষ্মীপুরে দেনাদারের ঘুষিতে পাওনাদার দোকানির মৃত্যু

লক্ষ্মীপুরে দেনাদারের ঘুষিতে পাওনাদার দোকানির মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিনিধি:  লক্ষ্মীপুরে পাওনা টাকা চাওয়ায় দেনাদারের মারধরে এক মুদি দোকানির মৃত্যু হয়েছে। মঙ্গলবার বিকেলে সদর উপজেলার উত্তর হামছাদী ইউনিয়নের মুকতারামপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। মৃত নবী উল্যা একই এলাকার মৃত নুরুজ্জামানের ছেলে। স্থানীয়রা জানায়, উপজেলার মুকতারামপুর গ্রামের নবী উল্যার কাছ থেকে সম্প্রতি শাহ আলম মালামাল বাকি নেয়। শাহ আলম একই গ্রামের শহিদ উল্যার ছেলে।

মঙ্গলবার বিকেলে ফের ওই দোকানে বাকিতে মালামাল নিতে আসে শাহ আলম। এ সময় আগের পাওনা টাকা চাওয়াতে শাহ আলম দোকানির ওপর ক্ষিপ্ত হয়। এ নিয়ে দুইজনের মধ্যে হাতাহাতি হয়।

একপর্যায়ে বুকে ঘুষি মারলে দোকানি মাটিতে লুটে পড়ে। এ সময় দোকানে থাকা তার স্ত্রী রোকেয়া বেগম এগিয়ে এলে তাকে মারধর করা হয়। স্থানীয় লোকজন নবী উল্যাকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

স্ত্রী রোকেয়া বেগম বলেন, পাওনা টাকা চাওয়ায় আমার স্বামীকে মারধর করা হয়। হাসপাতালে নেয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। ওই সময় আমাকেও মারধর করা হয়। এ ঘটনার বিচার চাই আমরা।

উত্তর হামছাদী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এমরান হোসেন নান্নু বলেন, ঘটনাটি দুঃখজনক। দ্রুত ওই দোকানির হত্যাকারীকে গ্রেফতার করার জন্য প্রশাসনের কাছে দাবি জানাই।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে লক্ষ্মীপুর সদর মডেল থানা পুলিশের ওসি লোকমান হোসেন বলেন, মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে তদন্ত চলছে।

হত্যা আরও সংবাদ

টেঁটা মেরে শিশু হত্যা

প্রেম করে বিয়ে, লাশ হলেন লক্ষ্মীপুরের লামিয়া

লক্ষ্মীপুরে দেনাদারের ঘুষিতে পাওনাদার দোকানির মৃত্যু

দক্ষিণ আফ্রিকায় সন্ত্রাসীদের গুলিতে লক্ষ্মীপুরের যুবক নিহত

লক্ষ্মীপুরে ৬ মাসে ১৪ হত্যা মামলা

স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যা করে লাশ গাছের সাথে ঝুলিয়ে রাখি, স্বামী লিটনের স্বীকারোক্তি

লক্ষ্মীপুরটোয়েন্টিফোর মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন  
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত লক্ষ্মীপুরটোয়েন্টিফোর ডটকম ২০১২ - ২০১৮
সম্পাদক ও প্রকাশক: সানা উল্লাহ সানু
রতন প্লাজা (৩য় তলা) , চক বাজার, লক্ষ্মীপুর-৩৭০০
ফোন: ০১৭৯৪-৮২২২২২,ইমেইল: news@lakshmipur24.com