লক্ষ্মীপুরে বিদ্যুৎ কেন্দ্রের জন্য অধিগ্রহনকৃত জমির মালিকদের বিক্ষোভ

আনিস কবির: অধিগ্রহনকৃত ভূমির ক্ষতিপূরন পাওয়ার দাবীতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল করছে ক্ষতিগ্রস্ত জমির মালিকরা। বুধবার দুপুরে লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জের উত্তর সোনাপুরে অবস্থিত পল্লী বিদ্যুৎ সাব স্টেশনের সামনে ঘন্টাব্যাপী এ মানববন্ধন কর্মসুচি পালন করে বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী। পরে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিন শেষে উপজেলা কার্যালয়ের সামনে গিয়ে শেষ হয়। ক্ষতিপূরন পাওয়ার জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে একটি স্মারকলিপি প্রদান করেন জমির মালিকরা। মানববন্ধন কর্মসুচিতে বক্তব্য রাখেন, জমির মালিক রেদোয়ান ব্যাপারী,দুলাল পাটওয়ারী ও ফারুক হোসেন প্রমুখ।

এ সময় বক্তারা বলেন, গত তিন বছর আগে পল্লী বিদ্যুৎ সাব স্টেশনের জন্য প্রায় সাড়ে ৫ একর ভূমি অধিগ্রহন করে সরকার। বর্তমানে সাব স্টেশনের কাজ প্রায় শেষ। কিন্তু এখানো ভূমির অধিগ্রহরেনর টাকা পেিরশোধ করা হয়নি। ইতিমধ্যে কয়েকজন ক্ষতিপূরন দেয়া হলোও কয়েকশ পরিবারকে এখনো ক্ষতিপূরনের টাকা দেয়া হয়নি। তাদের অভিযোগ, কয়েকজন ব্যাক্তি ভূয়া জমির মালিক দাবী করে আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন। ওই মামলা দায়ের করার পর ক্ষতিপূরনের টাকা দেয়া বন্ধ করে প্রশাসন। যারা মামলা করছে,তাদের প্রকৃত জমির মালিকানা নেই বলেও দাবী করেন তারা। ক্ষতিপূরনের টাকা না পাওয়ায় মানববেতর জীবন-যাপন করছেন তারা। দ্রুত ক্ষতিপূরনের টাকা না দেয়া হলে আরো কঠোর কর্মসুচির হুশিয়ারী দেন ভূক্তভোগীরা। পল্লী বিদ্যুৎ সাব স্টেশন(উপকেন্দ্র) দায়িত্বরত উপ-সহকারী প্রকৌশলী সুমন আহমেদ জানান, অধিগ্রহনের পর ক্ষতিপূরনের টাকা জেলা প্রশাসক বরাবর দেয়া হয়েছে। এরপর কেন ক্ষতিপূরন দেয়া হয়নি,সে বিষয়ে জানা নেই। তবে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. ইউসুফ আলী ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, মামলায় জটিলতা থাকার কারনে অধিগ্রহনের টাকা দেয়া যাচ্ছেনা। এ বিষয়ে দ্রুত আলাপ-আলোচনা করে সমস্যা সমাধান করার উদ্যোগ গ্রহন করা হবে।