লক্ষ্মীপুরে মাদক বিরোধি অভিযানে গ্রেফতার সংখ্যা ২শ ছাড়াল

নিজস্ব প্রতিনিধি: লক্ষ্মীপুরে পুলিশের মাদক বিরোধী অভিযানে জেলা তাঁতিলীগের আহবায়ক দীপংকর ও পুলিশের তালিকাভূক্ত মাদক ব্যবসায়ী জহিরুল ইসলামসহ ৪৫ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। শনিবার রাত থেকে রোববার (৩ জুন) দুপুর পর্যন্ত সদর, রায়পুর, রামগঞ্জ ও রামগতি উপজেলাও চন্দ্রগঞ্জ থানার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে এসব মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ নিয়ে গত ১৯ মে থেকে চলমান অভিযানে লক্ষ্মীপুরে গ্রেফতারকৃত মাদক ব্যবসায়ীর সংখ্যা দাড়াঁলো ২শ ৫ জনে।

ডিবি পুলিশ জানায়, তাঁতিলীগ নেতা ও চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী দিপংকর চৌধুরী দিপুকে শনিবার (২ জুন) সন্ধ্যার দিকে শহরের গোডাউন রোড এলাকার তার ভাড়া বাসা থেকে বিপুল পরিমাণে ইয়াবাসহ তাকে আটক করা হয়। আটককৃত দিপংকর লক্ষ্মীপুর জেলা তাঁতিলীগের আহ্বায়ক ও পৌরসভার বাঞ্চানগর এলাকার হরলাল নাথের ছেলে।

এছাড়া অন্য আসামিদের কে শুক্রবার ( ১ জুন) রাত থেকে শনিবার (২ জুন) দুপুর পর্যন্ত জেলার সদর, রায়পুর, রামগঞ্জ, রামগতি উপজেলা ও চন্দ্রগঞ্জ থানার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে  ৩৬ জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃতদের মধ্যে অধিকাংশই স্বরাষ্টমন্ত্রনালয় ও পুলিশ হেডকায়োর্টারস এর তালিকাভূক্ত মাদক ব্যবসায়ী বলে জানায় পুলিশ।

এর আগে ৩০ মে ৪৯ জন, ২৫ মে ২৩ জন, ২২ মে ২৯, ২১ মে ২২ কে গ্রেফতার করে পুলিশ। অভিযানের মাঝে গা ঢাকা দিয়ে তাদের ব্যবহৃত নিয়মিত ফোন নাম্বার বন্ধ রেখেছে শীর্ষ ব্যবসায়ীরা। গোয়েন্দা সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে। সূত্র জানিয়েছে মাদক ব্যবসায়ীদের মধ্যে রাজনৈতিক ব্যক্তি, রাজনৈতিক পরিবারের সন্তান, জনপ্রতিনিধি ও নারী রয়েছেন। লক্ষ্মীপুর সদর, রায়পুর, রামগঞ্জ ও রামগতি উপজেলার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের কে গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেফতারকৃতদের মধ্যে স্বরাষ্টমন্ত্রনালয় ও পুলিশ হেডকোয়ার্টারসের তালিকাভূক্ত মাদক ব্যবসায়ী রয়েছে।

লক্ষ্মীপুর জেলা পুলিশ সুপার আসম মাহতাব উদ্দিন বলেন, ‘মাদকবিরোধী অভিযানের পর থেকে অনেকে গা-ঢাকা দিয়েছে। আমাদের অভিযান অব্যাহত আছে। মাদক ব্যবসায়ীদের নামের তালিকা ও ছবি দেশের সব জেলায় পাঠানো হয়েছে। যে যেখানে থাকুক গ্রেফতার হবেই। আর মাদকের বিরুদ্ধে যুদ্ধ চলবেই।’