লক্ষ্মীপুরে ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে রক্তাক্ত

নিজস্ব প্রতিনিধি: লক্ষ্মীপুরে দাবীকৃত চাঁদার টাকা না পেয়ে ফজলে রাব্বি ইদ্রিস নামে এক ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে জখম করার অভিযোগ উঠেছে সুমন হোসেন রিকু’র বিরুদ্ধে। বুধবার (১৩ জুন) দুপুরে লক্ষ্মীপুরের রাখালিয়া বাজার সংলগ্ন মোল্লা বাড়ির দরজা নামক স্থানে এ ঘটনা ঘটে।পরে আহত ব্যবসায়ীকে সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহত ব্যবসায়ী ইদ্রিস রাখালিয়ার খন্দকারপুর এলাকার মৃত হাসানুজ্জামানের ছেলে এবং ওই বাজারের আল মদিনা ফার্নিসারের মালিক। অভিযুক্ত সুমন ওই এলাকার শহিদ উল্লার ছেলে এবং স্থানীয় মাদকসেবী বলে দাবী ব্যবসায়ীর।

স্থানীয়রা জানায়, কয়েকদিন ধরে সুমন তার লোকজন নিয়ে ব্যবসায়ী ইদ্রিসের কাছে ৫০ হাজার টাকা চাঁদা দাবী করে আসছে। টাকা দিতে অপারগতা প্রকাশ করায় ইদ্রিসের ওপর ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে তারা। এক পর্যায়ে ঘটনার সময় বাড়ি থেকে বাজারে যাওয়ার পথে সুমনের নেতৃত্বে স্থানীয় মান্নান, মানিকসহ ৭/৮জন লোক দেশীয় অস্ত্রসন্ত্র নিয়ে ব্যবসায়ী ইদ্রিসের উপর হামলা চালায়। এক পর্যায়ে তাকে কুপিয়ে ও হাতুড়ি পিটা দিয়ে রক্তাক্ত জখম করা হয়। পরে স্থানীয়রা তাকে ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন।

হাসপাতালে চিকিৎসাধিন ব্যবসায়ী ইদ্রিস বলেন, মাদক সেবনের টাকার জন্য সুমন আমার কাছে ৫০ হাজার টাকা দাবী করে। দাবীকৃত টাকা না দেওয়ায় লোকজন নিয়ে আমাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে ও হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে রক্তাক্ত জখম করেছে। এ ঘটনার সুষ্ঠ বিচার দাবী করেন তিনি।

এ ব্যাপারে যোগাযোগ করেও অভিযুক্ত সুমন হোসেন রিকুর বক্তব্য জানা যায়নি।

লক্ষ্মীপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) লোকমান হোসেন জানান, এ ঘটনায় থানায় কেউ অভিযোগ করতে আসেনি। লিখিত অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।