লক্ষ্মীপুরে জেলা পরিষদের সদস্য মাহবুবের অত্যাচারে অতিষ্ঠ কর্মকর্তা কর্মচারীরা

নিজস্ব প্রতিনিধি: লক্ষ্মীপুর জেলা পরিষদের কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের সাথে পরিষদের সদস্য মাহবুবুল হক মাহবুবের অসাদাচরণ, অশোভনীয় আচারণ, হুমকি-ধামকি ও গালমন্দের প্রতিবাদে কর্মবিরতি দিয়েছে পরিষদের কর্মকর্তা কর্মচারীবৃন্দ। মঙ্গলবার (৫জুন) সকাল থেকে পরিষেদর প্রতিটি কক্ষে তালা লাগিয়ে সকল ধরণের কার্যক্রম বন্ধ করে দেয় তারা। পরে সদস্য মাহবুবুল হক মাহবুবের হাত থেকে পরিত্রান পেতে ও তার বিচার চেয়ে পরিষদের সামনে মানববন্ধন করে তারা।

অভিযোগ রয়েছে মাহবুবুল হক মাহবুব বিভিন্ন সময় পরিষদের অফিস সহায়কসহ কর্মকর্তা কর্মচারীদের সাথে গালমন্দসহ অশোভনীয় আচরণ করে আসছে। এত অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে কর্তব্যরত সবাই। বিগত সময়ে পরিষদের বার্তা বাহক মাহতাব উদ্দিন হৃদয়ের সাথে হাতাহাতি, নৈশ প্রহরী হাবিব উল্যাহকে বিভিন্ন প্রকার গালমন্দ করেছে, ভি আই পি রুম না দেয়ায় অফিস সহায়ক আলাউদ্দিনকে একইভাবে গালমন্দ, সহকারী প্রকৌশলী আব্দুল্যাহ আল মামুনের সাথে অশোভনীয় আচরণসহ গালমন্দ, সার্ভেয়ার মিজানুর রহমানের রুমে তালা লাগিয়ে বের করে দিয়ে গালমন্দসহ গায়ের দিকে তেড়ে আসা এবং সর্বশেষ গত ৪ জুন সোমবার মোবাইল ফোন রিসিভ না করায় ভারপ্রাপ্ত গোপনীয় সহকারী রুহুল কুদ্দুসকে গালমন্দ ও নাজেহাল করা হয়েছে। এঘটনায় মঙ্গলবার সকালে কর্মবিরতি দেয় এবং প্রতিবাদে মানববন্ধন করে তারা।
এ বিষয়ে মাহবুবল হক জানান, আমাকে নিয়ে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে। ঘটনার সাথে আমি জড়িত নয় এবং আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা অপবাদ দিয়ে মানববন্ধন করা হয়েছে। বরং আমি চিন্তিত আমি কক্সবাজারে কাউন্সিলর একরামের মতো ষড়ন্ত্রের শিকার।