কমলনগরে রাস্তার পাশের সরকারি গাছ বিক্রির অভিযোগ, গুড়ি জব্দ

নিজস্ব প্রতিনিধি: লক্ষ্মীপুরের কমলনগরে রাস্তার পাশের বনবিভাগের সরকারি গাছ বিক্রি করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। কেটে নেওয়ার সময় গাছের গুড়ি আটক করে স্থানীয়রা। খবর পেয়ে বনবিভাগ জব্দ করে তিনটি গুড়ি। মঙ্গলবার (৬ ফেব্রুয়ারি) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে উপজেলার তোরাবগঞ্জ ইউনিয়নের ফাজিল বেপারিরহাট সংলগ্ন রাস্তার পাশ থেকে একটি আকাশমনি গাছ কেটে নেওয়ার জব্দ করার ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানায়, করাইতলা এলাকার মো. জামাল নামের এক ব্যক্তি ফাজিল বেপারিরহাট বাজারের ফার্নিসার ব্যবসায়ীর কাছে ওই গাছ বিক্রি করে। সকালে শ্রমিকরা গাছটি কেটে নেওয়ার সময় স্থানীয়রা বাঁধা দেয়। এর আগেও জামাল নিজেকে বন বিভাগের লোকদাবী করে একইভাবে সরকারি গাছ বিক্রি করেছে বলে অভিযোগ স্থানীয়দের।
স্থানীয় ইউপি সদস্য মো. ইসমাইল বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গেলে শ্রমিকরা জানায়, জামাল ফার্নিসার ব্যবসায়ী শহাজালালের কাছে গাছটি বিক্রি করেছে। সে কারণে তারা গাছ কেটে নিচ্ছে। পরে এলাকার লোকজনের সহযোগীতায় গাছের গুড়িগুলো আটক করা হয়।
অভিযুক্ত জামাল বলেন, মরা গাছ, বিদ্যুতের খুঁটি সংলগ্ন সে কারণে গাছটি কাটা হয়েছে। তবে ফার্নিসার ব্যবসায়ী শাহ জালালের সাথে কথা বলা সম্ভব হয়নি।
কমলনগরের বনপ্রহরী মো. মেহেদী বলেন, গাছের তিন খন্ড গুড়ি স্থানীয় ইউপি সদস্য ইসমাইলের জিম্মায় রাখা হয়েছে।
কমলনগর উপজেলা বন কর্মকর্তা পারভেজ আহমেদ জানান, সরকারি গাছ কেটে নেওয়া কিংবা বিক্রি করার সুযোগ নেই। জড়িতদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হবে।